বৃহস্পতিবার,১৪ নভেম্বর, ২০১৯ অপরাহ্ন

নিরাপদ স্থানে সরে যেতে মোংলা পুলিশের মাইকিং

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ০৮ নভেম্বার, ২০১৯ ২২ ৩২
  • 103 বার পঠিত

মোংলা প্রতিনিধি-

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল বাংলাদেশ উপকূলের ৫০০ কিলোমিটারের মধ্যে পৌঁছে যাওয়ায় মোংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দরে ৭ নম্বর বিপদ সংকেত জারি করা হয়েছে। মোংলা থানা প্রশাসনের পক্ষ হতে জনসাধারনকে সতর্ক করা হচ্ছে মাইকিং করে। 

শুক্রবার (৮ নভেম্বর) সন্ধ্যায় মোংলা থানার পক্ষ থেকে মাইকিং করে সতর্কতা করা হয়। এসময় উপকুলবর্তী এলাকার মানুষদের নিরাপদ স্থানে সাইক্লোন সেন্টারে আশ্রয় নিতে বলে হয়েছে। 

এ ঝড় মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ৪৯৫ কিলোমিটার দক্ষিণে, পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ৪৯৫ কিলোমিটার দক্ষিণে এবং চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ৬২০ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৫৮৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে অবস্থান করছিল। 

এসময় ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৭৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ১২০ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ১৪০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছিল। 

আবহাওয়া দপ্তরের আবহাওয়াবিদ আবদুর রহমান আন্দলোন৭১ নিউজকে কে বলেন, আপাতত এর গতিমুখ সুন্দরবনের দিকে। শনিবার বিকালের পর বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকায় ঝড়ের প্রভাব অনুভূত হতে পারে। মধ্যরাতে খুলনা অঞ্চল দিয়ে বুলবুল উপকূল অতিক্রম করতে পারে। ঘূর্ণিঝড়টি আঘাত করলে ৫ থেকে ৭ ফুট উচ্চতায় জলোচ্ছ্বাস হতে পারে।

ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুলের প্রভাবে সাতটি জেলাকে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা হিসাবে চিহ্নিত করা হয়েছে। জেলাগুলো হলো- খুলনা, সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, বরগুনা, পিরোজপুর, পটুয়াখালী ও ভোলা। 

এদিকে বুলবুল-এর কারণে সাগর উত্তাল হয়ে উঠেছে। উপকূলীয় অঞ্চলসহ দেশের সর্বত্র আজ সারা দিন বৃষ্টি হয়েছে। সম্ভাব্য দুর্যোগ মোকাবিলায় শুক্রবার ছুটির দিনটিতে ও দুর্যোগ মোকাবিলায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটিগুলো জরুরি সভা করেছে। দুর্যোগ-পরবর্তী চিকিৎসা সেবার জন্য মেডিকেল টিম গঠনসহ দুর্যোগকালীন ও দুর্যোগ-পরবর্তী সব ধরনের প্রস্তুতি নেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দিয়েছে উপকূলীয় জেলা প্রশাসনগুলো।

আন্দোলন৭১/আজীম/জিকে

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2018 Rokonuddin
Theme Developed BY Rokonuddin